আইপি অ্যাড্রেসিং - TCP/IP Addressing


একটি কম্পিউটারকে অ্যাড্রেসিং করার জন্য টিসিপি/আইপি ৩২ বিট বা ০ থেকে ২৫৫ পর্যন্ত সংখ্যা ব্যাবহার করে।


টিসিপি/আইপি অ্যাড্রেস

ইন্টারনেটে সংযুক্ত হওয়ার পূর্বে অবশ্যই প্রতিটি কম্পিউটারের একটি আইপি অ্যাড্রেস প্রয়োজন হয়।

এটি হল একটি আইপি অ্যাড্রেস - 144.76.71.36

তেমনি উপরের সংখ্যাগুলোর সমতুল্য এটিও একটি আইপি অ্যাড্রেস - www.websschool.com


একটি আইপি এড্রেস হল ৪টি সংখ্যা

প্রতিটি কম্পিউটারের ভিন্ন ভিন্ন আইপি এড্রেস হয়। একটি কম্পিউটারকে অ্যাড্রেসিং করার জন্য আইপি ৪টি সংখ্যা ব্যাবহার করে। সংখ্যা গুলো অবশ্যই ০ থেকে ২৫৫ এর মধ্যে হয়। সাধারনত একটি আইপি এড্রেস দেখতে এরকম হয় -

৬৫.২০১.১৬৬.১২৩

আইপি এড্রেসের ৪ টি সংখ্যাকে ডট ( . ) চিহ্ন দ্বারা আলাদা করা হয়।


৩২ বিট = ৪ বাইট

কম্পিউটারের ক্ষেত্রে আইপি ৩২ বিট অ্যাড্রেসিং পদ্ধতি ব্যাবহার করে। আমরা জানি ১ বাইট = ৮ বিট এবং আইপি ব্যাবহার করে ৪ বাইট। ১ বাইট ধারণ করতে পারে ২৫৫ টি বিভিন্ন মান। যেমন - ০০০০০০০০ , ০০০০০০০১ , ০০০০০০১০ , ০০০০০০১১ , ০০০০০১০০ ,০০০০০১০১ , ০০০০০১১০ , ০০০০০১১১ ...... এভাবে ১১১১১১১১ পর্যন্ত।

এখন আপনি নিশ্চয়ই বুঝতে পারছেন কেন আইপি এড্রেসিং করতে ০ থেকে ২৫৫ পর্যন্ত সংখ্যাগুলো ৪ বার ব্যাবহার করা হয়।


ডোমেইন

১২ ডিজিটের একটি সংখ্যা মনে রাখার থেকে কি একটি নাম মনে রাখা সহজ নয় ?
হ্যাঁ, অবশ্যই সহজ।

আইপি এড্রেসিং এর জন্য নামও ব্যাবহার করা হয় যাকে বলা হয় ডোমেইন নাম। যেমন – websschool.com একটি ডোমেইন নাম।
যখন আপনি একটি ওয়েব সাইটকে এড্রেসিং করেন যেমন – https://www.websschool.com, এই নামটি একটি Domain Name Server (DNS) দ্বারা একটি নাম্বার এ রূপান্তরিত হয়।

সমগ্র পৃথিবীতে Domain Name Server (DNS) ইন্টারনেটে সংযুক্ত থাকে এবং আপনি যখনই কোন ডোমেইন নাম দিয়ে সার্চ করেন Domain Name Server (DNS) তা আইপি এড্রেস এ রূপান্তরিত করে।
যখন একটি নতুন ডোমেইন নাম একটি আইপি এড্রেস দিয়ে রেজিস্ট্রেশন করা হয় তখন সমগ্র পৃথিবীর Domain Name Server(DNS) গুলো এই নতুন তথ্য সংরক্ষণ করে।